• Sat. Oct ১৬, ২০২১

আমিওপারি ডট কম

ইতালি,ইউরোপের ভিসা,ইম্মিগ্রেসন,স্টুডেন্ট ভিসা,ইউরোপে উচ্চ শিক্ষা

মহানবীকে (সা.) নিয়ে আবারও ব্যঙ্গচিত্র

Byfayhan

Jan 6, 2013

আবারও মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.)- এর ব্যঙ্গচিত্র ছাপিয়েছে ফরাসি সাপ্তাহিক পত্রিকা ‘চার্লি হেবডো’।. প্যারিসভিত্তিক এ সাপ্তাহিকীটি সম্প্রতি মহানবীর (সা.) জীবনী নিয়ে ৬৪ পৃষ্ঠার একটি বিশেষ সংখ্যা প্রকাশ করে যাতে বেশ কিছু ব্যঙ্গচিত্র ছাপানো হয়েছে। এর আগে গত ১৯ সেপ্টেম্বর বিশ্বনবীর ব্যঙ্গচিত্র প্রকাশ করেছিল তারা।

‘চার্লি হেবডো’র সম্পাদক স্টিফেন চারবোনিয়া দাবি করেছেন, তিউনিশিয় বংশোদ্ভূত এক ফরাসি নাগরিক ও সমাজবিজ্ঞানীর ব্যাপক গবেষণার ওপর ভিত্তি করে এ বিশেষ সংখ্যা বের করা হয়েছে। এর নাম দেয়া হয়েছে ‘দ্য লাইফ অব মুহাম্মাদ’।

এটি প্রকাশের আগে রোববার স্টিফেন চারবোনিয়া বলেন, “ আমার মনে হয় না সচেতন মুসলমানরা এতে কোনো অসঙ্গতি খুঁজে পাবেন।”

এরপর সোমবার তুরস্কের প্রধানমন্ত্রী রিসেপ তাইয়্যেব এরদোগানের রাজনৈতিক উপদেষ্টা ইব্রাহিম কালিন ফরাসি সাপ্তাহিকীর এ উদ্যোগের তীব্র নিন্দা জানিয়ে বলেন, “মুসলিম অনুভূতিকে আঘাত করার লক্ষ্যে উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে এসব ব্যঙ্গচিত্র প্রকাশের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। মহানবীর (সা.) জীবনকে ব্যঙ্গচিত্রের মাধ্যমে প্রকাশ করাটা অন্যায়। ‘চার্লি হেবডো’ তাদের এ জঘন্য কাজের ব্যাখ্যা দিতে গিয়ে যাই বলুক না কেনো এটি একটি উস্কানি।”

চার্লি হেবডোর এমন কাণ্ডের সমালোচনা হচ্ছে খোদ ফ্রান্সেও। ফরাসি সরকারের এক মুখপাত্র গণমাধ্যমকে বলেন, “এটা আগুনে তেল ঢালার সমান। এর কোনো মানে হয় না।”

ফরাসি এ সাপ্তাহিকীটি এখন পর্যন্ত বেশ কয়েকবার ‘বাক স্বাধীনতা’র অজুহাতে মহানবীর (সা.) অবমাননা করে বিভিন্ন লেখা ও ব্যঙ্গচিত্র প্রকাশ করেছে। এ ধরনের আরও ব্যঙ্গচিত্র প্রকাশ করা হবে বলে জানিয়েছে চার্লি হেবডোর কর্তৃপক্ষ।

গত সেপ্টেম্বরে ফ্রান্সের এ সাপ্তাহিকীটি মহানবীর (সা.) ব্যঙ্গচিত্র প্রকাশ করার পর তা বিশ্বজুড়ে বিশেষ করে মুসলিম দেশগুলোতে তীব্র প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি করে। এর ফলে বিশ্বের অনেক মুসলিম দেশই ফরাসি সাংস্কৃতিক কেন্দ্র এবং প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দিয়েছিল।

এর আগে মার্কিন নাগরিক নাকুলা বাসেলি ইসলাম বিদ্বেষী চলচ্চিত্র ‘ইনোসেন্স অব মুসলিমস’ নির্মাণ করে সারা বিশ্বে ব্যাপক বিতর্কের সৃষ্টি করে। চলচ্চিত্র তৈরির প্রতিবাদে মুসলিম দেশগুলোতে তীব্র বিক্ষোভ হয়। এ সময় অনেক হতাহতের ঘটনা ঘটে। লিবিয়ার বেনগাজিতে মার্কিন কনস্যুলেটে বিক্ষুব্ধ মুসলমানদের হামলায় রাষ্ট্রদূত নিহত হন।

সূত্র : আল জাজিরা।

[[ আপনি জানেন কি? আমাদের সাইটে আপনিও পারবেন আপনার নিজের লেখা জমা দেওয়ার মাধ্যমে আপনার বা আপনার এলাকার খবর তুলে ধরতে জানতে “এখানে ক্লিক করুণ” তুলে ধরুন  নিজে জানুন এবং অন্যকে জানান। ]]

*****লেখাটি ভালো লাগলে আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুণ!*****

fayhan

আমার নাম মোঃ ফয়সাল রায়হান । আমার জন্ম ঢাকা । ২০১২ সালে ইতালিতে আসি। বর্তমানে ইতালি তে আছি ।। অনেক আগ্রহ থাকার কারনে সবার কাছ থেকে শিখার চেষ্টা করি । আমার জ্ঞান খুবই সামান্য ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *