• u. Sep ১৬, ২০২১

আমিওপারি ডট কম

ইতালি,ইউরোপের ভিসা,ইম্মিগ্রেসন,স্টুডেন্ট ভিসা,ইউরোপে উচ্চ শিক্ষা

অস্ট্রেলিয়ায় ২০১৪-১৫ সালের মাইগ্রেশন প্রোগ্রামে বাংলাদেশীদের জন্য থাকছে ব্যপক সুযোগ!

ByLesar

Aug 15, 2014

অস্ট্রেলিয়াতে ২০১৪-১৫ সালের মাইগ্রেশন প্রোগ্রাম শুরু হয়েছে। অস্ট্রেলিয়ার ইমিগ্রেশন ও বর্ডার প্রতিরক্ষা মন্ত্রী স্কট মরিসন গত ১৩ মে আনুষ্ঠানিক ঘোষণার মধ্য দিয়ে এই বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। ক্রমবর্ধমান বাণিজ্যিক ভিসা কার্যক্রম এই ক্ষেত্রে অগ্রাধিকার পাবে।

মাইগ্রেশন প্রোগ্রামটি চালু করা প্রসঙ্গে স্কট মরিসন বলেন, আমাদের সরকার এই মাইগ্রেশন প্রোগ্রামের মাধ্যমে নিশ্চিত করতে চায় যে অর্থনৈতিকভাবে শক্তিশালী এবং দক্ষতামুলক কর্মকাণ্ডের মাধ্যমে আমরা একটি অগ্রসরমান জনগোষ্ঠী তৈরি করতে চাই। এই মাইগ্রেশন প্রোগ্রামটির বাজেটের ক্ষেত্রে ৬৮ শতাংশ বরাদ্দ করা হয়েছে, দক্ষতামূলক কর্মী এবং শ্রমবাজারের জন্য শ্রমিকের নিয়োগ জন্য স্পন্সরড ভিসা। শ্রমবাজারের শ্রমিক নিয়োগের ক্ষেত্রে যেসব অগ্রাধিকারমূলক সুযোগ-সুবিধা দেওয়া হবে তারমধ্যে রয়েছে মাইগ্রেশনের পর কাজ খুজে দেওয়ার ক্ষেত্রে সহযোগিতা করা। তবে এই ব্যবস্থায় অবশ্যই অস্ট্রেলিয়ার স্থানীয় কর্মীদের মূল বিবেচ্য হিসেবে গণ্য করা হবে অর্থাৎ এটি যেন তাদের কাজের কোন ক্ষতি না করে সেদিকে লক্ষ্য রাখা হবে।

২০১৪-১৫ মাইগ্রেশন প্রোগ্রামে মোট মাইগ্রেট করা হবে ১৯০০০০। তারমধ্যে ১২৮৫৫০টি হবে দক্ষতামুলক মাইগ্রেশন, ৬০৮৮৫টি হবে ফ্যামিলি মাইগ্রেশন এবং ৫৬৫টি মাইগ্রেশন ব্যবস্থা রাখা হয়েছে বিশেষ বিবেচনার ক্ষেত্রে। বাকী ৪০০০ মাইগ্রেশনকে রাখা হয়েছে পারিবারিক ধারাপ্রবাহ বজায় রাখার জন্য। এই ব্যবস্থাটি বিগত মাইগ্রেশন ব্যবস্থাপনার একটি বিস্তৃত রূপ এটি আসলে বিভিন্ন সামুদ্রিক পথে অবৈধ পথে অস্ট্রেলিয়ায় প্রবেশাধিকারকে বৈধ করার একটি উপায়। এরফলে অস্ট্রেলিয়া সরকারের ২৬৭ মিলিয়ন মার্কিন ডলার সাশ্রয় হবে। তবে এই ব্যবস্থাটির মাধ্যমে ভবিষ্যতের এই ধরনের প্রেক্ষাপটকে জোরালোভাবে নিরুৎসাহিত করা হচ্ছে। আপনি কিভাবে এই ইমিগ্রেশন প্রোগ্রামে আবেদন করবেন? (কিভাবে আবেদন করবেন সেই তথ্য জানার আগে আপনাকে এই লেখাটির বাকি অংশ আনলক করতে হবে। কিভাবে আনলক করবেন এই লেখার নিচে বিস্তারিত দেওয়া রয়েছে।)[sociallocker]

আপনি যদি এই ইমিগ্রেশন প্রোগ্রামে আগ্রহী হয়ে থাকেন তবে এই ক্ষেত্রে আইনগত এবং আইনসঙ্গত সকল তথ্য ও পরামর্শ দিয়ে সহযোগিতা করতে পারে এডুএইড। এই প্রতিষ্ঠানটি বিগত কয়েকবছর যাবত অস্ট্রেলিয়ায় ইমিগ্রেশনের ক্ষেত্রে সহযোগিতায় বেশ ভালো সুনাম কুড়িয়েছে। অস্ট্রেলিয়ায় মাইগ্রেশনের ক্ষেত্রে এডুএইডের অনলাইন অ্যাকসেসমেন্টের জন্য ক্লিক করুন এখানে

উল্লেখ্যঃ যারা আপনাদের ফেসবুকে আমাদের সাইটের প্রতিটি লেখা পেতে চান তারা এখানে ক্লিক করে আমাদের অফিশিয়াল ফেসবুক পেজে গিয়ে লাইক দিয়ে রাখতে পারেন। [/sociallocker]

*****লেখাটি ভালো লাগলে আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুণ!*****

Lesar

আমিওপারি নিয়ে আপনাদের সেবায় নিয়োজিত একজন সাধারণ মানুষ। যদি কোন বিশেষ প্রয়োজন হয় তাহলে আমাকে ফেসবুকে পাবেন এই লিঙ্কে https://www.facebook.com/lesar.hm

২ thoughts on “অস্ট্রেলিয়ায় ২০১৪-১৫ সালের মাইগ্রেশন প্রোগ্রামে বাংলাদেশীদের জন্য থাকছে ব্যপক সুযোগ!”
  1. অষ্টেলিয়া মাইগ্রেশন ২০১৪-২০১৫০প্রোগ্রাম সম্পর্কে একটু বিস্তারিত জানাবেন ভাইয়া

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *