ধূমপান ছাড়ার সহজ উপায় গুলো জেনেনিন

ধূমপান পরিত্যাগ করা কি কঠিন কিছু? ধূমপায়ীরা হয়তো বলবেন, অবশ্যই কঠিন। অনেকে ধূমপান ত্যাগের অনেক চেষ্টা করছেন, কিন্তু পারেননি। গবেষণায় দেখা গেছে, ধূমপান ত্যাগ করার জন্য যদি নিজ থেকে কিছু কৌশল রপ্ত করা যায় তাহলে প্রতি ১০ জনের মধ্যে ৯ জনই সফল হন। সে রকম কিছু কৌশল এখানে উল্লেখ করা হল-
ধূমপানে কী কী স্বাস্থ্য সমস্যা হয় তার একটি তালিকা তৈরি করুন এবং এর মধ্যে কোন বিষয়টিকে আপনি সবচেয়ে বেশি ভয় পান, সেটাতে লাল চিহ্ন দিয়ে রাখুন।
ধূমপান ত্যাগ করলে কী কী লাভ হতে পারে তার একটি তালিকা তৈরি করুন।
আপনার পরিচিত যেসব লোক ধূমপান ত্যাগ করেছেন তার একটি তালিকা তৈরি করুন। আপনি দেখবেন যে, তারা কেউ কিন্তু আপনার চেয়ে স্মার্ট নন বা সবল নন। সুতরাং তারা ধূমপান ছাড়তে পারলে আপনি কেন পারবেন না?
ধূমপান ছাড়ার জন্য একটি তারিখ নির্বাচন করুন এবং সেদিন থেকেই ধূমপান ছেড়ে দিন। ওই দিন সব সিগারেট, অ্যাসট্রে, দিয়াশলাই এবং লাইটার ছুড়ে ফেলে দিন। আপনার বাসা এবং গাড়ি পরিষ্কার করুন, পরিষ্কার করুন আপনার পোশাক-আশাক, আর আপনার দাঁতগুলোও পরিষ্কার রাখুন।
আপনার সঙ্গে ধূমপান ত্যাগে যোগ দেয়ার জন্য আপনার বাড়িতে কিংবা কর্মক্ষেত্রে অন্য ধূমপায়ীদের একত্র করার চেষ্টা করুন।
পরিকল্পনা মতো এগিয়ে যান। ধূমপান ছাড়ার আগেই ব্যায়াম করা ও পুষ্টিকর খাবার খেতে শুরু করুন। মজুদ রাখুন স্বাস্থ্যকর, স্বল্প ক্যালরির নাশতা, চিনিবিহীন গাম এবং ক্যানডি।
যতক্ষণ না আপনি আপনার সাফল্যের ব্যাপারে নিশ্চিত হচ্ছেন ততক্ষণ পর্যন্ত উচ্চ ঝুঁকিপূর্ণ পরিস্থিতি যেমন ককটেল পার্টি পরিহার করুন।
টেনশন থেকে মুক্তির ভিন্ন উপায় খুঁজে নিন। ব্যায়াম, মেডিটেশন এবং গভীরভাবে শ্বাস-প্রশ্বাস অনুশীলন এ ক্ষেত্রে সাহায্য করতে পারে।
নিজেকে প্রতারিত করবেন না। আপনি হয়তো ভাবতে পারেন, সিগারেট তো ছেড়েই দিয়েছেন কিন্তু আজকের দিনে একটি সিগারেট খেলে এমন কী ক্ষতি হবে। সাবধান, এই চিন্তা মাথায় আনবেন না। একটা সিগারেট আপনার মধ্যে আরও সিগারেট খাবার প্রলোভন তৈরি করবে।
যদি প্রথম চেষ্টায় আপনি সিগারেট ছাড়তে সফল না হন, আবার চেষ্টা করুন। বেশিরভাগ লোক, যারা ধূমপান ছেড়েছেন, তারা চূড়ান্তভাবে সফল হওয়ার আগে কয়েকবার ব্যর্থ হয়েছেন।
ধূমপান ছেড়ে দেয়ার পর যদি সময় কাটান আপনার জন্য কঠিন হয়ে পড়ে, আপনি নিজেকে সম্মোহিত করুন, যারা আপনাকে সমর্থন দেন। যোগ দিন তাদের সঙ্গে।
নিকোটিন প্রতিস্থাপন থেরাপির সাহায্য নিতে পারেন, ধূমপান ছাড়তে এটা উপকারী। নিকোটিন প্রতিস্থাপন থেরাপি বিভিন্ন ধরনের পাওয়া যায়। যেমনঃ প্যাচ, গাম, ইনহেলার অথবা ন্যাসাল স্প্রে ইত্যাদি।বিউপ্রপিওন ওষুধ ধূমপান ত্যাগে সাহায্য করতে পারে।
লেখক : আবাসিক সার্জন, ঢাকা ন্যাশনাল মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল

[[ আপনি জানেন কি? আমাদের সাইটে আপনিও পারবেন আপনার নিজের লেখা জমা দেওয়ার মাধ্যমে আপনার বা আপনার এলাকার খবর তুলে ধরতে এই লেখায় ক্লিক করে জানুন এবং  তুলে ধরুন। নিজে জানুন এবং অন্যকে জানান। আর আমাদের ফেসবুক ফ্যানপেজে রয়েছে অনেক মজার মজার সব ভিডিও সহ আরো অনেক মজার মজার টিপস তাই এগুলো থেকে বঞ্চিত হতে না চাইলে এক্ষনি আমাদের ফেসবুক ফ্যানপেজে লাইক দিয়ে আসুন। এবং আপনি এখন থেকে প্রবাস জীবনে আমাদের সাইটের মাধ্যমে আপনার যেকোনো বেক্তিগত জিনিসের ক্রয়/বিক্রয় সহ সকল ধরনের বিজ্ঞাপন ফ্রিতে দিতে পাড়বেন। ]]

*****লেখাটি ভালো লাগলে আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুণ!*****

View all contributions by

Subscribe To Our Newsletter

আপনার পক্ষে কি প্রতিদিন আমাদের সাইটে আসা সম্ভব হয় না? তাহলে আপনি আমাদের ইমেইল নিউজলেটার সাবসক্রাইব করতে পারেন। এর মাধ্যমে আমাদের নতুন কোনো পোষ্ট করলে আপনি স্বয়ংক্রিয়ভাবে তার সন্ধান পেয়ে যাবেন আপনার নিজের ইমেইলের ইনবক্সে।

{ 0 comments… add one }

Leave a Comment

alexa toolbar

Get our toolbar!

সর্ব কালের ৮ জন সেরা লেখক

    সর্বাধিক পঠিত

    Popular Posts

    আমাদের সম্পর্কে | যোগাযোগ | সাইট ম্যাপ

    কপিরাইট ©২০১১-২০২০ । আমিওপারি ডট কম

    পূর্ব অনুমতি ব্যতিরেকে কোনো লেখা বা মন্তব্য আংশিক বা পূর্ণভাবে অন্য কোন ওয়েবসাইট বা মিডিয়াতে প্রকাশ করা যাবে না।

    ডিজাইন এবং ডেভেলপঃ

    Amiopari.com